৯.মার্জিন ট্রেডিং(Margin Trading)

যখন আপনি কোনো মুদির দোকানে ডিম কিনতে যান,তখন কিন্তু আপনি শুধু একটি দিম কিনতে পারেন না,আপনাকে একটি নিদ্রিষ্ট পরিমান কিনতে হয়।যেমনঃ ১ হালি অথবা ১ ডজন।

ফরেক্স মার্কেটেও এমন হয়ে থাকে।কখনই আপনি শুধু ১ ইউরো কিনতে অথবা বিক্রি করতে পারবেন না। এগুলো অংশ/লট এ কিনা বেচা হয়ে থাকে।যেমনঃ কোন মুদ্রার ১,০০০ ইউনিট(মাইক্রো),১০,০০০ ইউনিট(মিনি) অথবা ১,০০,০০০ ইউনিট(স্ট্যান্ডার্ড)। এই লট গুলো আপনার ব্রোকার এবং আপনার একাউনট এর উপর নির্ভর করে।

এখন আপনি ভাবতে পারেন যে আপনার কাছে ১০,০০০ ইউরো কিনার মতো মূলধন নেই,তাহলে কি আপনি ট্রেড করতে পারবেন না?

জি!আপনি অবশ্যই পারবেন।এই মার্জিন ট্রেডিং এর দ্বারা এটা সম্ভব।

মার্জিন ট্রেডিং বলতে বুঝান হয়ে মূলত ধার করা মূলধন নিয়া ট্রেড করা।এর মাধ্যমে আপনি ২৫ ডলার অথবা ১০০০ ডলার দিয়ে ১,২৫০ ডলার ইউনিট অথবা ৫০,০০০ ডলার ইউনিট এর ট্রেডে অংশ নিতে পারবেন।

ট্রেড করতে গেলে মার্জিন ট্রেডিং খুব গুরুত্বপূর্ণ একটি বিষয়।এটা কিভাবে সম্ভব তা নীচে আলচনা করা হল।

১.ধরুন আপনি মার্কেট দেখছেন।আপনার মার্কেট দেখে মনে হল যে ব্রিটিশ পাউন্ড এর মূল্য ইউ এস ডলার এর চেয়ে বাড়বে।

২.আপনি একটি স্ট্যান্ডার্ড লট খুললেন (১,০০,০০০ ইউনিট GBP/USD),যেটা দিয়ে আপনি ২% মার্জিনে ব্রিটিশ পাউন্ড কিনলেন এবং বিনিময় হার বাড়ার অপেক্ষাতে করলেন।আপনি যখন GBP/USD এর ১ লট(১,০০,০০০ ইউনিট) ১.৫০০০০ মূল্যে কিনলেন,আপনি আসলে ১,০০,০০০ পাউন্ড কিনছেন,যার মূল্য ১,৫০,০০০ ডলার(১,০০,০০০ ইউনিট GBP * 1.50000 )।যদি বাজারে ২% মার্জিন থাকে তাহলে  ৩,০০০ ডলার দিয়ে ট্রেড করতে পারবেন(১,৫০,০০০ ডলার * ২%)।৩,০০০ ডলার দিয়ে আপনি ১,০০,০০০ পাউন্ড এর ট্রেড নিয়ন্ত্রণ করতে পারবেন।পরবর্তীতে মার্জিনের ব্যাপারে বিষদ আলোচনা করা হবে।

৩.যদি আপনার ভবিষ্যৎবানি ঠিক হয় আর আপনি যদি বিক্রি করে থাকেন এবং আপনি যদি ১.৫০৫০০ তে আপনার ট্রেড বন্ধ করে দেন তাহলে আপনি ৫০০ ডলার আয় করে ফেলবেন।

আপনার ক্রিয়াGBPUSD
আপনি ১.৫০০০০ হারে ১,০০,০০০ পাউন্ড কিনলেন+১,০০,০০০-১,৫০,০০০
কিছুক্ষনের মদ্ধে আপনি দেখলেন GBP/USD এর বিনিময় হার বেড়ে ১.৫০৫০ হলো এবং আপনি বিক্রি করলেন।+১,০০,০০০+১,৫০,০০০
আপনি ৫০০ ডলার লাভ করে ফেললেন।+৫০০

যখন আপনি কোন ট্রেড বন্ধ করবেন তখন আপনার বিনিয়োগ করা মূলধন আপনার ট্রেড এর লাভ বা ক্ষতি হিসাব করে আপনার একাউনটে ফেরত ছলে আসবে।

রিটেইল ট্রেডিং এর বিকাশের কারনে এখন অনেক ব্রোকাররা ইচ্ছামতো লট এ ট্রেড করতে পারে।

এর ফলের আপনার মাইক্র,মিনি অথবা স্ট্যান্ডার্ড লট এ ট্রেড করার প্রয়োজন পরে না।যদি ১,২৩৪ আপনার পছন্দের নম্বর হয়ে থাকে তাহলে আপনি এই পরিমান মূলধন নিয়েও ট্রেড করতে পারবেন।  

Source : https://www.babypips.com/learn/forex/time-to-make-some-dough

Author: Mohammad Liton

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *